আমরা এ দেশের মানুষকে উন্নত সমৃদ্ধশালী করবো-প্রধানমন্ত্রী

0
94

ঢাকা প্রতিনিধিঃ  শুক্রবার বিকেলে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের নবনির্মিত কেন্দ্রীয়  কার্যালয়ে উপদেষ্টা পরিষদ ও কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের যৌথ সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছেন, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ থেকে স্বাধীনতার রজত জয়ন্তী তথা ২০২০-২১ সাল ‘মুজিব বর্ষ’ হিসেব পালন করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, দীর্ঘদিন অবৈধ ক্ষমতার পালাবদলে এদেশের মানুষ ভোটের অধিকার হারিয়েছে। কিন্তু বর্তমানে আওয়ামী লীগ সরকার জনগণের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে অবৈধ ক্ষমতা দখলের পালা চলছিল দীর্ঘদিন। জনগণের ভোটের অধিকার নিয়ে খেলা, দুর্নীতি, স্বজনপ্রীতি এবং সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ কার্যক্রম করাই তাদের কাজ ছিল, যারা অবৈধভাবে ক্ষমতা আসতো।

শেখ হাসিনা আরও বলেন, দেশের সর্বস্তরের মানুষকে নিয়ে একেবারে তৃণমূল পর্যায় পর্যন্ত উদযাপন করা হবে মুজিব বর্ষ। শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানে, ক্রীড়া, চিত্রাঙ্কনসহ বহুমুখী কর্মসূচি ছাড়াও বিশিষ্ট নাগরিকদের নিয়ে পালন করা হবে এ বর্ষ।

তিনি আরও বলেন, আমরা এ দেশের মানুষকে উন্নত সমৃদ্ধশালী করবো। সেই লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছি। ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ মধ্য আয়ের দেশ। এবং ২০৪১ সালে বাংলাদেশকে উন্নত দেশ করবো। সেই সাথে আমাদের উন্নয়নের কর্মসূচি শুধু শহর ভিত্তিক নয়, তৃণমূলের জন্য পরিকল্পনা করেছি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, পাকিস্তান আমলে বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে সেসময়ের ইন্টিলিজেন্ট ব্রাঞ্চের যে ৪০ হাজার পৃষ্ঠার বিশাল রিপোর্ট তা ৯ হাজার পৃষ্ঠায় সম্পাদনা করে ১৪টি ভিলিউমে তা প্রকাশ করা হবে।

এগুলো দেশের ইতিহাস, জাতীয় গবেষণা এবং আগামী প্রজন্মের জন্য সম্পদ বলেও শেখ হাসিনা।