আমন আবাদে সকল কৃষি কর্মকর্তাগনকে প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় সব ধরণের বিভাগীয় প্রস্তুতি গ্রহণের নির্দেশ

0
552

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সরেজমিন উইং-এর পরিচালক কৃষিবিদ ড. মোঃ আবদুল মুঈদ চলতি মৌসুমে আমন ধান আবাদ নির্বিঘ করতে রংপুর অঞ্চলের সকল কৃষি কর্মকর্তাগনকে যে কোন প্রকার প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় সব ধরণের বিভাগীয় প্রস্তুতি গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন।
তিনি  শুক্রবার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের রংপুর আঞ্চলিক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে রংপুর অঞ্চল এবং সকল জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তাগণের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় নিয়মিত মাঠ পরিদর্শনপূর্বক নির্বিঘে আমন আবাদে নিশ্চিত করতে এ নির্দেশনা দেন।
এসময় তিনি উপস্থিত সকল পর্যায়ের কৃষি কর্মকর্তাগণের বক্তব্য শোনেন এবং মাঠের বিভিন্ন চলমান কার্যক্রম, সমস্যা ও কার্যক্রম ভিত্তিক চাহিদার সমাধানে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দেন। মুঈদ বলেন, মহান স্বাধীনতা পর বাংলাদেশের যে কয়েকটি সেক্টরে সবচেয়ে বেশি সাফল্য অর্জিত হয়েছে- সেগুলোর মধ্যে কৃষি সেক্টরের সাফল্য ঈর্ষণীয় বলে উল্লেখ করেন।
তিনি বলেন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মাধ্যমেই বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের উদ্ভাবিত কৃষি প্রযুক্তিসমূহ মাঠ পর্যায়ে সম্প্রসারণসহ কৃষকদের নিকট পৌঁছানো তথা দৃশ্যমান করার লক্ষ্যে বাস্তবায়িত হয়।
এজন্য তিনি চলতি আমন মৌসুমে দৃশ্যমান প্রযুক্তি সমূহ যেমন- আদর্শ বীজতলা তৈরি, সারিতে ধানের চারা রোপন, ১০ সারি পর পর ১ সারি ফাঁকা রাখা (লোগোভো পদ্ধতি), উত্তর-দক্ষিণে সারি করে রোপন করা, ধান ক্ষেতে ধৈঞ্চা ও কঞ্চি/ডাল পুঁতে পার্চিং করার বিষয়ে কৃষকগণকে উদ্বুদ্ধ করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা ও ব্লক পর্যায়ের কর্মকর্তাগণকে উদ্যোগী হতে পরামর্শ দেন।
তিনি বন্যা কবলিত এলাকায় যেন চারার সংকট না হয়, সেজন্য নাবীতে আমনের চারা রোপনের উদ্দেশ্যে ভাসমান এবং বন্যামুক্ত উঁচু স্থানে বীজতলা তৈরি ও তদারকি জোরদার করার জন্য প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেন।
উক্ত মত বিনিময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের রংপুর, গাইবান্ধা, কুড়িগ্রাম, লালমনিরহাট ও নীলফামারী জেলার উপ- পরিচালক, জেলা প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা, অতিরিক্ত উপ-পরিচালক, আঞ্চলিক অফিসের উপ-পরিচালক ও উদ্যান বিশেষজ্ঞ এবং রংপুর জেলার সকল উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা, অতিরিক্ত কৃষি কর্মকর্তা ও কৃষি সম্প্রসারণ কর্তকর্তাগণ।
মত বিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন রংপুর অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক কৃষিবিদ মোঃ শাহ আলম এবং অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন রংপুর কৃষি তথ্য সার্ভিসের আঞ্চলিক বেতার কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোঃ আবু সায়েম।