ধ্বংসস্তুপে দাঁড়িয়ে বড় স্কোর গড়ার শক্তি দেখাল অস্ট্রেলিয়া

0
11

 

এজন্যই তারা ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম শক্তিশালী দল। পাঁচবার বিশ্বকাপ জিতেছে।
গত এক বছর বাজে পারফর্ম করেও এবারের বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়া অন্যতম ফেবারিট। কেন এতশত বিশেষণ তাদের জন্য ব্যবহার করা হয়; তা আরও একবার প্রমাণ হয়ে গেল আজ। উইন্ডিজের বিপক্ষে ৭৯ রানে ৫ উইকেট হারানোর পর ৪৯ ওভারে অজিরা ২৮৮ রান তুলে অল-আউট হয়েছে।
টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৩৮ রানে ৪ উইকেট হারায় অজিরা। দলীয় ১৫ রান থেকে পতনের শুরু। ওশান থমাসের বলে অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ (৬) ক্যাচ তুলে দেন উইকেটের পেছনে। ১১ রানের ব্যবধানে ফিরে যান ভয়ংকর ডেভিড ওয়ার্নার (৩)। শেলডন কটরেলের বলে ধরা পড়েন শেমরন হেটমায়ারের হাতে। তিনে নামা উসমান খাজাকে (১৩) নিজের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত করেন অল-রাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল।
আরেক মারকুটে ব্যাটসম্যান গ্লেন ম্যাক্সওয়েল (০) কটরেলের দ্বিতীয় শিকার হলে বিপদে পড়ে যায় অজিরা। স্টইনিসকে (১৯) তুলে নেন অধিনায়ক জেসন হোল্ডার। ৭৯ রানে ৫ উইকেট হারানো দলের এই মহাবিপদের সময় হাল ধরেন অ্যালেক্স কোরি এবং স্টিভেন স্মিথ।
৫৫ বলে ৪৫ করা কোরিকে আন্দ্রে রাসেল নিজের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত করলে ভাঙে ৬৮ রানের জুটি। ৭ম উইকেটে কুল্টার নাইলকে নিয়ে আরও একটি দারুণ জুটি গড়েন স্টিভেন স্মিথ। দুজনেই তুলে নেন হাফ সেঞ্চুরি। স্মিথ ৭৭ বলে এবং কুল্টার নাইল ৪১ বলে। ১০৩ বলে ৭ চারে ৭৩ রান করা স্টিভেন স্মিথকে প্যাভিলিয়নে ফেরত পাঠিয়ে ১০২ রানের জুটি ভাঙেন ওশান থমাস। ব্র্যাথওয়েটের শিকার হন কামিন্স (২)। এই পেসারের দ্বিতীয় শিকার হয়ে সেঞ্চুরি মিস করেন ৭৯ বলে ৯২ করা কুল্টার নাইল। ৪৯ ওভারে ২৮৮ রানে অল-আউট হয় অস্ট্রেলিয়া। ব্র্যাথওয়েট নিয়েছেন ৩ উইকেট।