আখাউড়ায় ট্রেনের ছাদে ভ্রমণের দায়ে আটক ১৯

0
16

 

ট্রেনের ছাদে করে ভ্রমণ করা রেলওয়ের আইনে দণ্ডনীয় অপরাধ। ১৮৯০ সালের রেলওয়ে আইনের ১২৯ নম্বর ধারা অনুযায়ী কোনো ব্যক্তি বিপজ্জনক বা বেপরোয়াভাবে ট্রেনের ছাদে করে ভ্রমণ করলে তবে ওই ব্যক্তি এক বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড অথবা জরিমানা কিংবা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হতে পারে।

ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ ঝুঁকিপূর্ণ, অনিরাপদ এবং দণ্ডনীয় অপরাধ হিসেবে উল্লেখ করে রেলওয়ের পূর্বাঞ্চল রেলপথের আখাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনে তৃতীয় দিনের মতো অভিযান অব্যাহত রেখেছে আখাউড়া রেলওয়ে পুলিশ।

মঙ্গল (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে অভিযান চালিয়ে দুটি ট্রেন থেকে ১৯ জনকে আটক করা হয়েছে। সকালে ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা আখাউড়া হয়ে চট্টগ্রামগামী আন্তঃনগর মহানগর এক্সপ্রেস ও নোয়াখালী থেকে ছেড়ে আসা আখাউড়া হয়ে ঢাকাগামী আন্তঃনগর উপকূল এক্সপ্রেস নামের দুটি ট্রেনের ছাদ থেকে ওই ১৯ জনকে আটক করা হয়।

পরে তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে ব্রাহ্মণবাড়িয়া কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে আখাউড়া রেলওয়ে জিআরপি থানার ওসি শ্যামল কান্তি দাস জানিয়েছেন।

পূর্বাঞ্চল রেলওেয়ে সার্কেল (আখাউড়া) সহকারী পুলিশ সুপার মো. মজনুর রহমান বলেন, ট্রেনের ছাদে ভ্রমণের কারণে যেকোনো মুহূর্তে দুর্ঘটনা সংঘটিত হয়ে ভ্রমণকারীর মৃত্যু হতে পারে। ছাদে ভ্রমণের কারণে ট্রেন বিলম্বিত হয়ে স্বাচ্ছন্দ্য বিঘ্নিত হয় এবং সরকারি মূল্যবান সম্পদ ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ছাদে ভ্রমণকারী ও ভ্রমণে উৎসাহ সহযোগিতা প্রদানকারীও সমান অপরাধী।

তিনি বলেন, রেলওয়ে পুলিশের ঘোষিত কর্মসূচীর আওতায় ঝুঁকি নিয়ে ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ এড়াতে এ অভিযান চলছে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানিয়েছেন।