সিনেমা সাফল্যের মুখ না দেখলে নিজেকে অপরাধী মনে হয়-আমির খান

0
428

বিনোদন ডেস্কঃ   সিনেমা ফ্লপ হলে নিজেকে ব্যর্থ মনে করেন বলিউডের মিস্টার পারফেকশনিস্ট অভিনেতা আমির খান। শুধু তাই নয়, খুব অপরাধ বোধেও ভুগেন তিনি। এমনটাই সম্প্রতি জানালেন তিনি।

১৯৮৮ সালে  মনসুর খানের পরিচালনায় ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তাক’ ছবির মাধ্যমে বলিউডে পা রাখেন বলিউড সুপারস্টার আমির খান। এই ছবিটির অসাধারণ সাফল্যের পর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি আমির খানকে। তিনি পরিণত হন বলিউডের হার্টথ্রব অভিনেতায়। এরপর থেকেই শুরু হয় তার এগিয়ে চলার গল্প।

৫৩ বছর বয়সী এই অভিনেতা প্রায় তিন দশকেরও বেশি সময় ধরে বলিউডে নিজের দাপট দেখিয়ে যাচ্ছেন। প্রায় প্রতি বছরই তার চমক দেখার জন্য অধীর আগ্রহে থাকে তার সকল ভক্তগণ।

তবে সিনেমায় অভিনয়ের বিষয়ে ‘মিস্টার পারফেকশনিস্ট’ খ্যাত এই অভিনেতা খানিকটা খুঁতখুতে। ভালো চিত্রনাট্য ছাড়া তিনি সিনেমার সাথে চুক্তিবদ্ধ হন না। কেননা তার মতে, ভালো চিত্রনাট্য ছাড়া কোন সিনেমাই সফলতা পায় না, সেক্ষেত্রে বিনিয়োগকারীকে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হতে হয়। যা আমিরের পছন্দ না।

এদিকে আমির আরো বলেন যে, আমি কোন সিনেমাতে কাজ করার সময় দৃঢ় বিশ্বাসের সাথে কাজ করি এবং যদি সিনেমাটি সাফল্যের মুখ না দেখে তবে আমিও অনেক ব্যথিত থাকি। নিজেকে অপরাধী মনে হয়।

আমিরের পিকে এবং দঙ্গল ছবিটি বক্স অফিসের সকল রেকর্ড ভেঙ্গে ফেলে।

বর্তমানে এ বছরের অন্যতম প্রতিক্ষীত ছবি ‘থাগস অব হিন্দুস্থান’ সিনেমার শুটিং নিয়ে ব্যস্ত আমির খান । জানা গেছে, ভারতীয় সিনেমার ইতিহাসে আউটডোর শুটিংয়ের দিক দিয়ে এ ছবিটি হতে যাচ্ছে সবচেয়ে ব্যয়বহুল । এ সিনেমায় আমির খান ছাড়াও আরো রয়েছেন হিন্দি সিনেমার আইকন অমিতাভ বচ্চন।

এছাড়াও আরও থাকছেন ক্যাটরিনা কাইফ ও ফাতিমা সানা শেখ। ছবিটি মুক্তি পাবে আগামী ৭ নভেম্বর।  জলদস্যুদের কাহিনি নিয়ে ইতিহাস নির্ভর এ ছবির বেশিরভাগ শুটিংই হবে সমুদ্রে। এছাড়া পাহাড়, প্রকৃতি ও জীবনেরও সমন্বয় থাকবে এতে।