যৌতুক না দেওয়ায় খুন হলো জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নেতার মেয়ে

0
8

 

যৌতুকের জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুল হালিমের মেয়ে শোভা রাজমিন হুসনাকে (২০) পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) রাতের এ ঘটনায় নিহতের স্বামী রবিউল ইসলামকে (২৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

নিহত শোভা মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার বিশ্বাসপাড়া এলাকার মো. আবদুল হালিমের মেয়ে। আবদুল হালিম গাংনী উপজেলা জাতীয় পার্টির (জেপি) সভাপতি এবং কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

নিহতের বাবা আবদুল হালিম জানান, গত ১২ জুলাই মাগুরার সদরের শেহেলডাঙ্গা গ্রামের সোহরাব হোসেনের ছেলে রবিউল ইসলামের সঙ্গে শোভার বিয়ে হয়। বিয়ের আগে থেকেই শোভা গাজীপুরে বাসা ভাড়া নিয়ে ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (ডুয়েট) ভর্তির জন্য কোচিং করছিল। বিয়ের পর শোভা স্বামী রবিউলের সঙ্গে ডুয়েটের পাশে গাজীপুর মহানগরীর উত্তর ভুরুলিয়া এলাকার মোশারফ হোসেনের বাড়িতে ভাড়া থাকতেন।

তিনি আরো জানান, বিয়ের কিছুদিন পর থেকে রবিউল শোভাকে ৩০ লাখ টাকা যৌতুক চেয়ে মারপিট করতে থাকে। মঙ্গলবার রাত পৌনে ১২টায় শোভা ফোন যৌতুকের জন্য রবিউল তাকে বেদম মারধর করেছে বলে তার মাকে জানায়। মেয়ের কথা শুনে সকালে বাবার বাড়িতে চলে আসতে বলেন। এর কিছুক্ষণ পর থেকে শোভার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। পরে ভোর ৪টার দিকে বাসার মালিকের স্ত্রী ফোন করে শোভা অসুস্থ জানিয়ে তাদের দ্রুত শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আসতে বলেন। আজ (বুধবার) দুপুর ১২টার দিকে হাসপাতালে এসে মেয়ের লাশ দেখতে পাই।