সাদেক হোসেন খোকা মারা গেছেন

0
14

 

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সাদেক হোসেন খোকা মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

 

বাংলাদেশ সময় সোমবার দুপুর ১টায় চিকিৎসকরা আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

 

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

 

ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে ২০১৪ সালের ২৪ মে চিকিৎসার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে যান মহান মুক্তিযুদ্ধের এই গেরিলা যোদ্ধা।

 

 

 

দীর্ঘ ৫ বছর খোকা নিউইয়র্কে হাসপাতালে বিশেষজ্ঞদের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। দীর্ঘদিন ওষুধ সেবনের ফলে খোকার মুখে ঘা হয়ে যায়। তিনি খাবার খেতে পারছিলেন না বিধায় ১৮ অক্টোবর তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

 

পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর ডাক্তাররা তার শ্বাসনালিতে টিউমার দেখতে পান। ২৭ অক্টোবর তার শ্বাসনালির টিউমার অপসারণ করা হয়। এরপর থেকে তার অবস্থা অবনতির দিকে চলে যায়। পরে চিকিৎসকরা তাকে বাঁচানোর আশা ছেড়ে দেন।

 

সাদেক হোসেন খোকার জন্ম ১৯৫২ সালের ১২ মে। ১৯৭১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র থাকাকালীন তিনি মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিলেন।

 

গেরিলা যোদ্ধা হিসেবে তার খ্যাতি রয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মনোবিজ্ঞানে স্নাতকোত্তর করেন তিনি। আশির দশকে বামপন্থি রাজনীতি ছেড়ে আসেন বিএনপিতে।

 

ওই সময় নয়াবাজার নবাব ইউসুফ মার্কেটে বিএনপির কার্যালয় থেকে এরশাদবিরোধী আন্দোলনের সূচনা করে সাতদলীয় জোটের নেতৃত্ব দেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। ওই অন্দোলনে ঢাকা মহানগর সংগ্রাম পরিষদের আহ্বায়কের দায়িত্ব পেয়েছিলেন খোকা।

 

তিনি ১৯৯১ সালের জাতীয় নির্বাচনে ঢাকা-৭ আসনে (সূত্রাপুর-কোতোয়ালি) শেখ হাসিনাকে পরাজিত করে প্রথমবারের মতো এমপি নির্বাচিত হয়ে আলোচনায় আসেন। এ সময় তিনি যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পান।