হেগে যাচ্ছেন সু চি

0
30

 

রোহিঙ্গাদের,অত্যাচার,গণহত্যাও ধর্ষণের অভিযোগে গত মাসে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে মামলা করেছিল পশ্চিম আফ্রিকার ক্ষুদ্র দেশ গাম্বিয়া

 

রোহিঙ্গা মুসলমানদের গণহত্যার অভিযোগ মাথায় নিয়েই আগামী সপ্তাহে নেদারল্যান্ডসের হেগ শহরে যাচ্ছেন মিয়ানমারের ক্ষমতাসীন দলের নেত্রী অং সান সু চি।

 

রোহিঙ্গাদের গণহত্যা, অত্যাচার ও ধর্ষণের অভিযোগে গত মাসে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক আদালতে মামলা করেছিল পশ্চিম আফ্রিকার ক্ষুদ্র দেশ গাম্বিয়া। ওই মামলার শুনানিতে নিজের দেশের হয়ে লড়বেন সু চি।

 

মিয়ানমার সেনাবাহিনীর অত্যাচার থেকে বাঁচতে ২০১৭ সালের আগস্ট থেকে বিপুল পরিমাণ রোহিঙ্গা মিয়ানমার থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়। যদিও শুরু থেকেই রোহিঙ্গাদের ওপর নিপীড়ন ও গণহত্যার অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে মিয়ানমার। এবারও যথারীতি নিজেদের দোষ ঢাকারই চেষ্টা করছে সু চি’র দেশ। ১০ ডিসেম্বর হেগে অনুষ্ঠিতব্য শুনানিতে সু চি ‘‘জাতীয় স্বার্থ রক্ষায় লড়ার জন্য’’ যাবেন বলে জানিয়েছে তার দফতর।

 

সু চি’র দল ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসির জ্যেষ্ঠ মুখপাত্র মিও নায়ান্ত বলেন, ‘‘মিয়ানমারের মতের সঙ্গে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের মতের পার্থক্য রয়েছে। উত্তর রাখাইনে আসলেই কী ঘটেছে তা তিনি (সু চি) ব্যাখ্যা করবেন।’’

 

মামলার শুনানিতে মিয়ানমারের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে সু চি থাকায় অনেকেই বিস্মিত হয়েছেন।