কেমন আছে প্রতিবন্ধি স্কুলের শিক্ষার্থীরা

0
14

আব্দুল্লাহ আল মামুন,ঝিনাইদাহ ॥

প্রতিবন্ধি স্কুলের শিক্ষার্থীরা কেমন আছে? কিভাবে চলছে তাদের স্কুল?প্রতিবন্ধি হিসেবে তারা কতটুকুই সাহায্য সহযোগীতা পাচ্ছে ?এমনি নানা প্রশ্নের সম্মুখিন হতে হচ্ছে উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়েরনতুন প্রতিষ্ঠিত বেসরকারি প্রতিবন্ধি স্কুল গুলোতে। স্কুলগুলোর নিজেস্বঅর্থায়নে স্কুল নির্মন, প্রতিবন্ধিরা স্কুলে আসার সময় যেন কোনদুর্ঘটনা না হয় তার জন্য নিজেস্ব গাড়িতে করে যাতায়ত ব্যবস্থা করা,দুপুরে খাবারের আয়োজন করাসহ বিভিন্ন ভাবে সমাজ সেবা মূলক কাজকরে চলেছেন প্রতিষ্ঠন গুলো। শুধু একটি আশায় তাদের প্রতিষ্ঠানটি কোনএকদিন জাতীয় করণ হবে।

প্রতিবন্ধি শিক্ষার্থীদের ভাগ্যের উন্নয়ন হবেএবং সেই সাথে নিজেদেরও কষ্টের ফল পাবে।এমটি একটি প্রতিবন্ধি স্কুল ঝিনাইদহ সদর উপজেলার গান্নাইউনিয়নের কাশিমপুর প্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়। বিদ্যালয়টিআটলিয়া মৌজার ১৫শতক জমির উপর ২০১৭ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।সম্পূর্ণ সরকারি নিয়ম কানুন মেনে তাদের কার্যক্রম শুরু হয়েছে।শিক্ষার্থীদের পাঠদানে কোন সমস্যা নাহয় তার জন্য রয়েছে পরিপূর্ণশিক্ষক শিক্ষাকা। যাতায়াতের জন্য রয়েছে ৫টি গাড়ির ব্যবস্থা। দুপুরেরখাবেরর মেনুতে থাকে, বিস্কুট, কলা, কেক, পাওরুটি এবং কোন কোন দিনডিম ভাতের ব্যবস্থাও করা হয়।

এভাবেই দির্ঘদিন ধরে নিয়মনীতি মেনেস্কুলের কার্যপরিচালনা করে আসছে প্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়টি।রেলায়েন্স অরগানাইজেশন এনজিও নিজেস্ব তত্ববধানের মাধ্যমে বিদ্যায়টি২০১৭ সালে প্রতিষ্ঠিত হবার পর থেকেই প্রধান শিক্ষক, সহকারি শিক্ষক,থেরাপীস ও গাড়ী চলকসহ কোন কিছুরই যেন ত্রুটি নেই এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটিতে। বর্তমানে এই বিদ্যালয়ে মোট ২৭৫ জন শিক্ষার্থী। যারমধ্যে ১০৫ জন ছাত্র, ১৭০জন ছাত্রী রয়েছে। সকাল ৮টা থেকে দুপুর ২টাপর্যন্ত তাদের পাঠদানও করানো হয় যথাযথ নিয়মে। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জানান, রেলায়েন্স অরগানাইজেশন এনজিও এরমাধ্যমে আমাদের এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাঠদানসহ সকল কার্যক্রমপরিচালনা করে থাকি। সরকারি অনুমোদনের জন্য আমাদের এইপ্রতিষ্ঠানটি সরকারি নিয়ম কুনুন যথাযথ ভাবে পালন করে যাচ্ছি।এনজিও-এর মাধ্যমে বিদ্যালয়ের সকল অর্থের যোগন দিয়ে থাকি।

আমাদের উদ্দেশ্য একটাই আগামীতে প্রতিষ্ঠানটি যদি সরকারি করণ হয়, তাহলে এখানে যে সমস্থ্য বিশেষ চাহিদা সম্পূর্ণ শিক্ষার্থীরা আছে তাদেরকেসঠিক ভাবে পাঠদানের মাধ্যমে সুস্থ মানুষের মতই তারাও জাতিকে বিশেষকিছু উপহার দিতে পারবে।আব্দুল্লাহ আল মামুনঝিনাইদহ।০১৭১৩৯০৬৭৩৮