নওগাঁয় আদিবাসীদের বাড়ি পরিদর্শন করলেন জেলা প্রশাসক

0
133

আশরাফুল নয়ন, নওগাঁঃ   বিএমজেড ও নেটজ বাংলাদেশের অর্থায়নে এবংআশ্রয় এর বাস্তবায়নে বন্যার্ত আদিবাসীদের নির্মান করে দেওয়া বাড়িসহ পকল্পটির মাঠ পর্যায়ে চলমান বিভন্ন কার্যক্রম পরিদর্শন করেছেনজেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান।

গতকাল সোমবার বিকেলে নওগাঁর পতœীতলা উপজেলার চক-আক্রাম আদিবাসী পল্লীতে গৃহীত প্রকল্পপরিদর্শনে যান। এসময় আদিবাসী সম্প্রদায়ের নারী-পুরুষরা জেলাপ্রশাসককে উষ্ণ-অভ্যর্থনার মাধ্যমে বরণ করে নেন। পরে সেখানে একআলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যেতিনি আশ্রয় প্রকল্পের নেয়া কার্যক্রমের ভৃয়সী প্রশংসা করে বলেন,বর্তমান সরকার মানুষের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে নিরলস কাজ করেযাচ্ছে। চলমান উন্নয়নের এ ধারা অব্যাহত রাখতে প্রয়োজন সকলেরশতস্ফূর্ত অংশগ্রহন।

এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপজেলা নিবার্হী অফিসার মাহমুদাখাতুন,আশ্রয় এর রাজশাহী ডিজিএম কে এম জি রব¦ানি বসুনিয়া,মহাঅঞ্চল ব্যবস্থাপক নূরুল ইসলাম,প্রজেক্ট ম্যানেজার শাহেদুল ইসলাম,ইউনিটম্যানেজার আশীষ কুমার রায়,সুশান্ত কুমার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আশ্রয়-রেজিলিন্সে প্রকল্প নওগাঁর মান্দা, ধামুইরহাট, বদলগাছী ওনওগাঁ সদর উপজেলার মোট ১৬টি ইউনিয়নে কার্যক্রম করছে। প্রকল্পের উপকারভোগির সংখ্যা চার হাজার ৬৫জন। এর মধ্যে আদিবাসী ১১৩৫জন এবং অ-আদিবাসী ২৯৩০জন।

বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের ১৭২টি নতুন ঘর,আংশিক ঘর নির্মান ১৭২টি এবং পূন:আংশিক ঘর নির্মান করে দেয়াহয়েছে ৩০০টি। বিদ্যালয় মেরামত ১৪টি,৩০জন প্রতিবন্ধী, অসুস্থব্যক্তিকেসহায়তা,৬০০জন গর্ভবতী ও দুগ্ধদানকারী মাকে পুষ্টিকর খাবার সরবরাহ।