চাঁপাইনবাবগঞ্জে হত্যা মামলায় ১ জনের মৃত্যুদন্ড ও ৫ জনের যাবজ্জীবন

0
85

এস এম সাখাওয়াত জামিল দোলন, চাঁপাইনবাবগঞ্জঃ   চাঁপাইনবাবগঞ্জে একটি হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদন্ডাদেশ ও পাঁচজনের যাবজ্জীবন স্বশ্রম কারাদন্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টায় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ শওকত আলী এই রায় প্রদাণ করেন। রায় ঘোষণার সময় আসামীদের মধ্যে চারজন উপস্থিত থাকলেও বাকী দুইজন পলাতক রয়েছেন।

মৃত্যুদন্ডাদেশপ্রাপ্ত আসামী হচ্ছেন- জেলার গোমস্তাপুর উপজেলার কাশরইল গ্রামেরসমর উঁরাওয়ের ছেলে নিরঞ্জন উঁরাও (২২)। আদালত তাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানাওকরেন। যাবজ্জীবন কারাদন্ডপ্রাপ্তরা হলেনÑ একই উপজেলার রাইয়া উঁরাওয়ের ছেলে সমর উঁরাও (৪০)ও সাবানু উঁরাও (২৬), সমর উঁরাওরে ছেলে গণেশ উঁরাও (২২), রুবিয়া উঁরাওয়ের ছেলেদশরত উঁরাও (২২) এবং বিশ্বনাথ উঁরাওয়ের ছেলে বুধুয়া উঁরাও (২৪)। একই সঙ্গে আদালত তাদের প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরো এক বছরেরস্বশ্রম কারাদন্ড প্রদাণ করেন।

এদের মধ্যে বুধুয়া উঁরাও ও সমর উঁরাও পলাতক রয়েছেন। মামলার অতিরিক্ত পিপি আঞ্জুমান আরা বেগম জানান, ২০১০ সালের ২৩ নভেম্বর বিকালসোয়া ৫টায় কাশরইল গ্রামের রফিকুল ইসলাম জমি দেখাশুনা ও কাপড়ের ব্যবসার সুবাদে গোমস্তাপুর উপজেলার কাশরইল লাধু গ্রামের একটি চায়ের দোকানে বসেছিলেন। এ সময় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ওই স্থানেই তাকে গলা কেটে হত্যা করে আসামীরা।

পরে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নিহতের বড় ভাই আব্দুলজব্বার গোমস্তাপুর থানায় বাদী হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরে ২০১১ সালের ১২সেপ্টেম্বর গোমস্তাপুর থানার এসআই ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বাণি ঈসরাইল অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশীট বা অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

সাক্ষ্য প্রমানাদি ও দীর্ঘ শুনানী শেষে আদালত আজ সোমবার এই রায় প্রদাণ করেন। এ মামলার আসামী পক্ষে ছিলেন এ্যাডভোকেট আব্দুল ওদুদ ও আব্দুর রাজ্জাক খান।