নানকের কান্না ছুঁয়ে গেল প্রধানমন্ত্রীকেও

0
295

মোঃ ইব্রাহিম হোসেন, ঢাকা প্রতিনিধিঃ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের যে সব হেভিওয়েট নেতারা এবার মনোনয়ন বঞ্চিত হয়েছেন তাদের মধ্যে ঢাকা-১৩ আসনের উন্নয়নের রূপকার অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানকই প্রথম যিনি তাঁর প্রতিপক্ষের পক্ষে অবস্থান করলেন। এবারের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বেশ কয়েকজন শীর্ষ নেতা ও সাংসদ দলের মনোনয়ন পাননি।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক (শরীয়তপুর-১), আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম (মাদারীপুর-৩), আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান (ফরিদপুর-১) মনোনয়ন বঞ্চিত হয়েছেন। কিন্তু এদের মধ্যে কেউই এখনও পর্যন্ত তাঁর নিজ দলের প্রতিদ্বন্দ্বী, ইতিমধ্যেই যিনি দল থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন তাঁর পক্ষে দাঁড়াননি।

জাহাঙ্গীর কবির নানকই সর্বপ্রথম যিনি তাঁর দলীয় প্রতিদ্বন্দ্বী সাদেক খানের পাশে দাঁড়িয়েছেন। সেইসঙ্গে নিজেদের মধ্যে সব ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধ ভাবে নৌকার পক্ষে কাজ করার অঙ্গীকার করেছেন।
গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় রাজধানীর মোহাম্মদপুরের সূচনা কমিউনিটি সেন্টারে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় সাদেক খানকে সমর্থন জানান নানক।

এসময় কান্নাজড়িত কণ্ঠে নানক বলেন, ‘আমি যেদিন থেকে এ এলাকার সংসদ সদস্য হয়েছি, সেদিন থেকে নিরবচ্ছিন্ন ভাবে কাজ করে গিয়েছি। আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা এবার নৌকা তুলে দিয়েছেন সাদেক খানের হাতে। তাই সব ভেদাভেদ ভুলে আমাদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। এ দেশকে রক্ষার স্বার্থে, নৌকার স্বার্থে আমাদের এক হতে হবে।

কারণ নৌকার বিজয় ছাড়া আমাদের সামনে আর কোনো পথ খোলা নেই। বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, ইতিমধ্যেই জাহাঙ্গীর কবির নানকের এই বার্তা ও তাঁর আবেগঘন ভাষণের ভিডিও ফুটেজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে পৌঁছেছে। নানকের ভাষণে অত্যন্ত সন্তুষ্ট হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। শুধু তাই নয়, নানকের বক্তব্যে আপ্লুত হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নিজেও।