নবাবগঞ্জের আলোকিত নারী মৎস্য চাষী

0
96

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে প্রযুক্তি ভিত্তিক মৎস্য প্রশিক্ষন নিয়েদারিদ্রতা নির্মম কষাঘাত কে পেছনে হঠিয়ে আলোকিত জীবন খুঁজেপেয়েছেন নারী মৎস্য চাষী জয়নব।

নবাবগঞ্জ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার দপ্তরসূত্রে জানা গেছে উপজেলার ৩নং গোলাপগঞ্জ ইউনিয়নের খটখটিয়া কৃষ্ঠপুর গ্রামের কহিনুরের স্ত্রী জয়নব বেগম। পারিবারিক অভাব অনটনে দিনকাটত তার পরিবারের।

মৎস্য চাষ ফিরে দিয়েছে জীবনের স্বপ্ন । বাড়িসংলগ্ন মজা পুকুর খনন করে মৎস্য চাষ শুরু করে সে। উপজেলা মৎস্যকর্মকর্তার দপ্তর থেকে মাছ চাষের বিভিন্ন উপকরণ হিসাবে ২ লাখ টাকাদেওয়া হয় তাকে। এ টাকা দিয়ে পথ চলা।

নিজের ও অন্যের জমি লিজ নিয়েদেশি প্রজাতির বিভিন্ন জাতের মাছ চাষ শুরু করে। পুকুরে মাছ ছেড়েদিয়ে পরিচর্যা করেন তিনি বর্তমানে মাছ চাষ করে পরিবারের স্বচ্ছলতাফিরে এনেছেন। এ বিষয়ে নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইসচেয়ারম্যান মোছাঃ পারুল বেগম জানান নারীরা কর্মক্ষেত্রে যে বিশেষঅবদান রাখতে পারে তার দৃষ্টান্ত জয়নব বেগম। তার মাছ চাষ দেখে পার্শ্ববতীশিক্ষিত বেকার নারীদের মাছ চাষে আগ্রহ সৃষ্টি হচ্ছে।

উপজেলা মৎস্যকর্মকর্তা শামীম আহম্মেদ জানান তার পুকুরে মাছ উৎপাদন ভাল হয়েছেএকজন নারী হয়ে মাছ চাষে অবদান রাখায় উপজেলা পর্যায়ে মৎস্য সম্পাহপালনে তাকে ক্রেষ্ট দেওয়া হয়েছে। মৎস্য চাষী নারী জয়নব জানান সরকারিভাবে আরো আর্থিক ও কারিগরি সহযোগিতা পেলে মৎস্য চাষ প্রকল্পএগিয়ে নেওয়া সম্ভব হবে। এখন আলোকিত জীবন তার।